Home / ফ্রিল্যান্সিং / গুগল অ্যাডসেন্স এখন বাংলা ভাষায়
Google Adsense in Bangla
Google Adsense in Bangla

গুগল অ্যাডসেন্স এখন বাংলা ভাষায়

জ্বি, হ্যা। আমার বলতে অনেক ভালো লাগছে যে, গুগল এখন বাংলা ভাষায় তৈরি সাইটগুলিতেও তার অ্যাড দেখাবে এবং সেটা অনুমোদিত।

২৬শে সেপ্টেম্বার ২০১৭, গুগল তার অ্যাডসেন্স ব্লগে এটি ঘোষনা দেয়। যা প্রত্যেক বাংলা ভাষীদের জন্য একটি নতুন দিগন্তের সূচনা করেছে।

তো আজ আমি এখানে এই গুগল অ্যাডসেন্স নিয়ে আপনাদের সাথে কিছু গুরুত্বপূর্ণ তথ্য শেয়ার করছি।

আশা করছি আপনাদের লেখাটি ভালো লাগবে। আর দয়াকরে লেখাটি শেয়ার করতে ভুলবেন না।

Languages AdSense Supports

গুগল অ্যাডসেন্স এখন বাংলা ভাষায়

গুগল অ্যাডসেন্স দিয়ে আপনার সাইট মনিটাইজ (আয়) চালু করার আগে নিম্নলিখিত বিষয়গুলি লক্ষ্যনীয়।

সর্বপ্রথম গুগল অ্যাডসেন্স প্রোগ্রাম পলিসি ভালো ভাবে পড়ুন এবং দেখুন যে আপনার সাইটটি এর যোগ্য কিনা।

নিচে গুগল অ্যাডসেন্স প্রোগ্রাম পলিসির মূল বিষয়গুলি উপস্থাপন করা হলো-

  • অবৈধ ক্লিক এবং ইমপ্রেশন: একজন পাবলিশার্স কখনই তার নিজের এ্যাড এ ক্লিক করতে পারবে না এবং কোনো কৃত্রিম উপায়েও নয়।
  • ক্লিক করতে উৎসাহিত করা: প্রকাশকেরা তাদের বিজ্ঞাপনগুলি ক্লিক করতে বা ক্লিকগুলি অর্জনের জন্য প্রতারণামূলক বাস্তবায়ন পদ্ধতি ব্যবহার করতে পারবেন না বা বলবেন না।
  • কন্টেন্ট গাইডলাইন: পাবলিশার্স এমন কোনও পেজে অ্যাডসেন্স কোড স্থাপন করতে পারে না, যা গুগলের কন্টেন্ট নির্দেশিকা লঙ্ঘন করে। কিছু উদাহরণ: প্রাপ্ত বয়স্ক, হিংস্র বা জাতিগত অসহিষ্ণুতা সমর্থনকারী, নেশা সামগ্রী, হ্যাকিং কন্টেন্ট ইত্যাদি। এছাড়াও, আরো অনেক বিষয় রয়েছে যেগুলি এখন বিস্তারিত বলা সম্ভব হচ্ছে না।
  • কপিরাইটযুক্ত উপাদান: AdSense প্রকাশকরা কপিরাইট আইন দ্বারা সুরক্ষিত কন্টেন্টগুলি ব্যবহার করে Google বিজ্ঞাপন প্রদর্শন করতে পারেন না, যতক্ষন না সেই কন্টেন্টটি ব্যবহার করার প্রয়োজনীয় আইনি অধিকার থাকে।
  • নকল পণ্য: পাবলিশার্স কখনই অন্যের পণ্য সেলস করার জন্য জাল লোগো বা ট্রেডমার্ক ব্যবহার করতে পারবেন না। যে পণ্যগুলিতে ট্রেডমার্ক বা লোগো রয়েছে যা অন্যের ট্রেডমার্কের থেকে অভিন্ন বা স্বতন্ত্র নয়।
  • ট্রাফিকের উৎস: এমন পেজে গুগল এ্যাড দেয়া যাবে না যেসকল পেজের টাফিক উৎস গুগল পলিসি মতে বৈধ নয়, যেমন: পে-টু-ক্লিক, পে-টু-সার্ফ, অটোসার্ফ এবং ক্লিক-বিনিময় প্রোগ্রাম ইত্যাদি। এক্ষত্রে আপনাকে বৈধ ভাবে ওয়েব সাইটের ট্রাফিক বাড়াতে হবে।
  • বিজ্ঞাপন আচরণ: পাবলিশার্স চাইলে অ্যাডসেন্স অ্যাড কোডে পরিবর্তন করতে পারবেন কিন্তু সেই পরিবর্তনে যেন বিজ্ঞাপন পারফরম্যান্স বা বিজ্ঞাপনদাতারা ক্ষতিগ্রস্ত না হয়।
  • বিজ্ঞাপন প্রদর্শনের স্থান: পাবলিশার্স বিভিন্ন প্লেসমেন্ট এবং বিজ্ঞাপন বিন্যাস সঙ্গে পরীক্ষা করে দেখতে পারে, যে কোন পজিশনে এ্যাড ভালো পারফর্ম করছে। যাইহোক, AdSense কোড পপ-আপ, ইমেল বা সফ্টওয়্যার অনুপযুক্ত জায়গায় স্থাপন করা যাবে না। প্রকাশকদের অবশ্যই ব্যবহৃত প্রতিটি পণ্যের জন্য নীতিগুলি মেনে চলতে হবে।
  • ওয়েবসাইট প্রকৃতি: আপনার সাইটে অবশ্যই ইউজার ফ্রেন্ডলি নেভিগেশন থাকতে হবে। এখানে অবাঞ্ছিত ওয়েবসাইটগুলিতে ব্যবহারকারীদের পুনর্নির্দেশ করা, ডাউনলোডগুলি শুরু করা, ম্যালওয়ার অন্তর্ভুক্ত করা বা পপ-আপগুলি বা পপ-আন্ডারস করতে পারে যা সাইট নেভিগেশনে হস্তক্ষেপ করে, এমন কিছু করা যাবে না।
  • প্রযুক্তিগত প্রয়োজনীয়তা: আপনার সাইট ব্যবহারকারীদের আরো ভালো ব্যবহার সুবিধা প্রদানের জন্য গুগল এ্যাড প্রদর্শনের এই নিয়ম আপনাকে মেনে চলতে হবে।
                      > গুগল সমর্থিত ভাষা ব্যবহার করুন
                      > সাইটে সঠিক ওয়েব ফরমেট ব্যবহার করা, যাতে গুগল তার এ্যাড সঠিক ভাবে প্রদর্শন করতে পারে।
  • গুগল বিজ্ঞাপন কুকি: অ্যাডসেন্স প্রকাশকদের অবশ্যই একটি গোপনীয়তা নীতি থাকতে হবে এবং তা স্বীকার করতে হবে যে তৃতীয় পক্ষ আপনার ব্যবহারকারীদের ব্রাউজারগুলিতে কুকিজ স্থাপন এবং পড়তে পারে।
  • গোপনীয়তা: আপনি যে কোনও সাইট, অ্যাপ্লিকেশন বা অন্য কোনও সম্পত্তি যা আপনার কোনও Google বিজ্ঞাপনের পরিষেবা ব্যবহার করার ফল হিসাবে প্রদর্শিত হবে এমন কোনো তথ্য সংগ্রহ, ভাগ এবং ব্যবহার স্পষ্টভাবে প্রকাশ করতে হবে।
  • শিশুরা অনলাইন গোপনীয়তা সুরক্ষা আইন: যদি আপনি কোনও সাইট বা কোনও সাইটের কোনও বিভাগে Google বিজ্ঞাপন পরিষেবাটি প্রয়োগ করেন যা চাইল্ডস অনলাইন প্রাইভেসি প্রোটেকশন অ্যাক্ট (COPPA) দ্বারা আচ্ছাদিত হয়, আপনি সেই সাইটগুলির Google কে অবহিত করতে হবে।


আমার আজকের এই কন্টেন্টটি লেখার উদ্দেশ্য হচ্ছে, আপনাদের গুগল অ্যাডসেন্স এর পলিসি সম্পর্কে জানিয়ে দেয়া। যেটি আমাদের মত দেশের জন্য অনেক ভালো একটি সুয়োগ।

কিন্তু না বুঝেই আমরা অনেকেই এর সঠিক ব্যবহার করতে পারিনা এবং বিভিন্ন সমস্যার সম্মুখীন হই এবং পরবর্তীতে দেখা যায় যে, আমরা এই সুযোগগুলি থেকে বঞ্চিত হই।

তাই আমি আপনাদের সবাইকে অনুরোধ করছি, যদি সঠিক ভাবে সম্ভব না হয়, তাহলে গুগল অ্যাডসেন্স নিয়ে চেষ্টা না করাই ভালো। কারন তাতে করে যারা সঠিক ভাবে কাজ করতে চায় তারা আরো ভালো করতে সক্ষম হবে।

আগে ভালো করে বুঝুন গুগল অ্যাডসেন্স কি বলছে এবং তার পারেই একমাত্র এটি নিয়ে কাজ শুরু করুন।

দয়াকরে লেখাটি সবার সাথে শেয়ার করুন এবং অ্যাডসেন্স সুবিধাটিকে সঠিক ব্যবহারের সুয়োগ দিন।

ধন্যবাদ, সবাইকে। সাথে থাকার জন্য

Check Also

Free Payoneer Master Card

পেওনিয়ার (Payoneer) কি | কিভাবে এ্যাকাউন্ট তৈরি করবেন

51shares Love This Facebook LinkedIn Printপেওনিয়ার পেমেন্ট মেথড বর্তমানে একজন বাংলাদেশী ফ্রিল্যান্সার (Freelancer) এর জন্য …

8 comments

  1. Sir, Google AdSense account approve korte koto din time lage?…bangladesher kono site….amr siter account approval message akhono asheini…site e adsense add, prai 8month hoa gase kora…

  2. Sir ami english content er site a adsense nite chai, akhon ami country hisebe ki select korbo US, Naki BD, R site er boyos koto din hole ami adsense er jonno application korte parbo. plz janaben.

  3. ফারুক ভাই , আপনি অনেত ভালো মানের একটি পোস্ট করেছেন যা আমাদের জন্য অনেক অর্থবহ ! বাংরাদেশের অনেকেই আসেন যে গুগল এডসেন্স এর কথা শুনলে মনে করে যে এডাল্ট কিংবা খারাপ কাজ ! এক সময় বাংলাদেশের কিছু স্পামার ছিল যারা শুধু মাত্র খারাপ ইমেজ বা ছবি দিয়ে ইনকাম করতো – আজ তাদের জন্য গুগল এডসেন্স মানে খারাপ কাজ ! আসলে আপনাদের মতো বিজ্ঞ লোকেরাই পারে সবার কাছে আসল সত্যটাকে তুলে ধরা , আশা করি এ বিষয়ে আকটা পোস্ট করবেন.

  4. vaia,
    Google Adsense er jonno daily visitor, session kmn laage?
    plz janaben…

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *